ঢাকা ০২:১৩ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১১ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :

মোবাইল কোর্ট করে কাউকে অপমান করতে চাই না : খাদ্যমন্ত্রী

স্বাধীনবাংলা, বিশেষ প্রতিনিধিঃ
  • প্রকাশের সময় : ১১:৩১:৪৭ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ ২৬ বার পঠিত

মোবাইল কোর্ট করে কাউকে অপমান করতে চাই না : খাদ্যমন্ত্রী

সংবাদটি শেয়ার করুন :

স্বাধীনবাংলা, বিশেষ প্রতিনিধিঃ

চাউলের বাজারের অস্থিরতার জন্য ব্যবসায়ীদের হুঁশিয়ারি দিয়ে খাদ্যমন্ত্রী স্বাধন চন্দ্র মজুমদার বলেন, আমরা মোবাইল কোর্ট করে কাউকে অপমানিত করতে চাই না। যদি কেউ বাধ্য করে তাহলে তো করতেই হয়।

বৃহস্পতিবার (১ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে ঝিনাইদহ জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে চালকল মালিকদের সঙ্গে মতিবিনিময় শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

খাদ্যমন্ত্রী বলেন, মিনিকেট বলে কোনো চাল নেই। এ বিষয়ে আইন প্রণয়ন হয়েছে কার্যকর করতে একটু সময় লাগবে। দেশে যে চাউল আছে তাতে আমদানি করার প্রয়োজন নেই। চাউলের বাজার ঠিক রাখতে বেসরকারিভাবে চাউল আমদানিতে ট্যাক্স ফ্রি করা হচ্ছে। সেই সঙ্গে রমজানে দাম বাড়ার কোনো সুযোগ নেই।

জেলা প্রশাসক এস. এম রফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে এতে উপস্থিত ছিলেন- জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও ঝিনাইদহ-১ আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হাই, জেলা পুলিশ সুপার আজিম-উল-আহসান, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার রাজিয়া আক্তার চৌধুরীসহ জেলা উপজেলা প্রশাসনের বিভিন্ন কর্মকর্তারা।

 

এসবিএন

ট্যাগস :

মোবাইল কোর্ট করে কাউকে অপমান করতে চাই না : খাদ্যমন্ত্রী

প্রকাশের সময় : ১১:৩১:৪৭ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
সংবাদটি শেয়ার করুন :

স্বাধীনবাংলা, বিশেষ প্রতিনিধিঃ

চাউলের বাজারের অস্থিরতার জন্য ব্যবসায়ীদের হুঁশিয়ারি দিয়ে খাদ্যমন্ত্রী স্বাধন চন্দ্র মজুমদার বলেন, আমরা মোবাইল কোর্ট করে কাউকে অপমানিত করতে চাই না। যদি কেউ বাধ্য করে তাহলে তো করতেই হয়।

বৃহস্পতিবার (১ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে ঝিনাইদহ জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে চালকল মালিকদের সঙ্গে মতিবিনিময় শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

খাদ্যমন্ত্রী বলেন, মিনিকেট বলে কোনো চাল নেই। এ বিষয়ে আইন প্রণয়ন হয়েছে কার্যকর করতে একটু সময় লাগবে। দেশে যে চাউল আছে তাতে আমদানি করার প্রয়োজন নেই। চাউলের বাজার ঠিক রাখতে বেসরকারিভাবে চাউল আমদানিতে ট্যাক্স ফ্রি করা হচ্ছে। সেই সঙ্গে রমজানে দাম বাড়ার কোনো সুযোগ নেই।

জেলা প্রশাসক এস. এম রফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে এতে উপস্থিত ছিলেন- জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও ঝিনাইদহ-১ আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হাই, জেলা পুলিশ সুপার আজিম-উল-আহসান, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার রাজিয়া আক্তার চৌধুরীসহ জেলা উপজেলা প্রশাসনের বিভিন্ন কর্মকর্তারা।

 

এসবিএন